বুধবার, ১০ এপ্রিল ২০২৪, ০২:৩১ অপরাহ্ন

মিডওয়াইফারি পেশার বিরুদ্ধে চলমান ষড়যন্ত্রের নিন্দা জানিয়েছে এসবিজিএসএন

Reporter Name
  • Update Time : বৃহস্পতিবার, ১৪ জানুয়ারী, ২০২১
  • ১১৫৫ Time View

স্টাফ রিপোর্টার এ.কে.সরকারঃ- পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের আওতাধীন পরিবার কল্যান পরিদর্শিকাদের মিডওয়াইফ সম্মান দেয়ার লক্ষ্যে গত ১১ই জানুয়ারী ২০২১ইং সুপারিশ কমিটি গঠন করা হয়।

উক্ত সুপারিশ অথাৎ (FWV) দের কে ডিপ্লোমা ইন মিডওয়াইফারী সমমান দেওয়ার পরিকল্পনার কঠোর নিন্দা ও অনতিবিলম্বে উক্ত পদক্ষেপ বাতিলের আহবান জানালেন,
“সোসাইটি অব বাংলাদেশ গ্র্যাজুয়েট স্টুডেন্ট নার্সেস”।

উক্ত সুপারিশ বাস্তবায়ন করা হলে সর্বস্তরের নার্সদের নিয়ে কঠোর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে বলেও সংগঠন টি জানিয়েছেন।

কেননা এমন অযুক্তিক, ভিত্তিহীন সুপারিশ কে বাস্তবায়ন করা হলে বঙ্গবন্ধুর কন্যা দেশরত্ন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দেখা আধুনিক বা গ্র্যাজুয়েট নার্স গড়ার স্বপ্ন পথে সম্মাননায় আঘাত হানে।

আমাদের দেশের নার্সিং শিক্ষা অধিদপ্তর,
বাংলাদেশ নার্সিং মিডওয়াইফারী কাউন্সিলের
অধীনে থাকা নার্সিং কলেজ ও ইনস্টিটিউটের কোর্স গুলি হচ্ছে-

★ডিপ্লোমা ইন নার্সিং সাইন্স এন্ড মিডওয়াইফারী(৩বছর মেয়াদি কোর্স)

★ডিপ্লোমা ইন মিডওয়াইফারী (৩ বছর মেয়াদী কোর্স)

★বেসিক বিএসসি ইন নার্সিং(৪বছর মেয়াদি কোর্স)
উপরোক্ত কোর্সগুলোতে ৬ মাস ইন্টার্নিশিপ করতে হয় কারিকুলাম অনুযায়ী।
★পোষ্ট বিএসসি ইন পাবলিক হেল্থ নার্সিং (২বছর মেয়াদি কোর্স)

★মাষ্টার্স অব সাইন্স ইন নার্সিং (২বছর মেয়াদি কোর্স) এটায় ভর্তি হতে চাইলে কমপক্ষে ২ বছর কর্মক্ষেত্রে বাস্তব অভিজ্ঞতা থাকতেই হবে।

প্রতিটি কোর্স করতে ইচ্ছুক শিক্ষার্থীদের কে ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণের মাধ্যমে উত্তির্ন হয়ে সরকারি বা বেসরকারি প্রতিষ্ঠানগুলোতে ভর্তি হতে হয়।

এবং শুধু তাই নয় ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করার জন্যেও তাদের কোর্স অনুযায়ী মাধ্যমিক এবং উচ্চ মাধ্যমিক এর জিপিএ থাকতে হয়।

প্রাপ্ত জিপিএ ৩.০০ নিম্নে হলে তারা ভর্তি পরীক্ষা তে অংশগ্রহন এর সুযোগ ই পায় না।

আবার বিএসসি ইন নার্সিং কোর্স টি করতে ইচ্ছুক শিক্ষার্থীদের কে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক উভয় ই বিজ্ঞান বিভাগের হতে হবে।

অতঃপর আমাদের নার্সিং শিক্ষার্থীদের কে কোর্স চলাকালীন সময় ক্লাস, পরীক্ষা,নানা বিধিনিষেধ হাসপাতালের অনুশীলন (ক্লিনিক্যাল প্যাক্টিস্) করানো হয়।দক্ষতা বাড়ানোর জন্যে,রোগীকে মান সম্মত সেবা দানের লক্ষ্যে শিক্ষার্থীদের ইন্টর্নী করে কোর্স সম্পন্ন করতে হয়।

তার পরে তারে সরকারী বা বেসরকারি হাসপাতাল বা নার্সিং ইনস্টিটিউট ও কলেজ গুলোতে আবার পরীক্ষা দিয়ে কর্মক্ষেত্রে পদার্পণ করেন।

এমত অবস্থায় ১৮ মাস সময়ে (FWV) কোর্স সম্পন্ন করে কি করে ডিপ্লোমা ইন মিডওয়াইফারি কোর্স এর সমমান পাবার সুপারিশ করতে পারে।

আর অধিদপ্তর ই বা কি বিবেচনায় এমন সুপারিশ নিয়ে সময় নষ্ট করছে।
দক্ষ জ্ঞান সম্পন্ন গ্র্যজুয়েট নার্স তৈরিতে সরকার যখন নার্সিং শিক্ষার্থীদের সিলেবাস,বিষয়,সময়,পরীক্ষার ধরন নানামুখী পরিবর্তন করে যাচ্ছে বিশ্বের কাছে সমৃদ্ধ নার্স জনবল প্রস্তুতে,সেই মুহূর্তে কি করে (FWV)১৮ মাস সময়ে অর্জিত জ্ঞান আর দক্ষতা কে মিডওয়াইফারী সমমান দেয়ার সুপারিশ কে মেনে নেয়া হবে।

এটা নার্সদের নিয়ে সরকারের দেখা স্বপ্ন কে অবমাননা করার সমতুল্য।

(FWV) কোর্ষ সম্পন্নকারী দের জন্যে পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের আওতায় কর্মরত পরিদর্শিকাদের জন্যে তাদের যোগ্যতা ও দক্ষতা অনুযায়ী পদ সৃষ্টির লক্ষ্যে কাজ করলে সামাজিক ভাবে তারা নিজস্ব পরিচিতি পাবে,
সুপারিশ এর চেয়ে সেটা বেশী সম্মানযোগ্য।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
© All rights reserved © 2021
Design & Developed by Freelancer Zone
themesba-lates1749691102